কুষ্টিয়া সরকারি কলেজে ভর্তি হলেন আবরার ফায়াজ

  



পিএনএস ডেস্ক: নির্মম হত্যাকাণ্ডের শিকার বাংলাদেশ প্রকৌশল বিশ্ববিদ্যালয়ের (বুয়েট) ছাত্র আবরার ফাহাদের ছোট ভাই আবরার ফায়াজের ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে। বৃহস্পতিবার বিকেলে কুষ্টিয়া সরকারি কলেজে বিজ্ঞান বিভাগে তার ভর্তি সম্পন্ন হয়।

আবরার ফায়াজ অসুস্থ থাকায় তার বাবা ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন করেন। আবরারের ছাড়পত্রসহ আনুসাঙ্গিক কাগজপত্র গ্রহণ করে কুষ্টিয়া সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ ভর্তি কার্যক্রম সম্পন্ন করেন।

এর আগে গত মঙ্গলবার (১৫ অক্টোবর) ঢাকা কলেজের উচ্চ মাধ্যমিক দ্বিতীয় বর্ষে অধ্যয়নরত আবরার ফায়াজ সেখান থেকে ছাড়পত্র (টিসি) নেন। এরপর কুষ্টিয়া সরকারি কলেজে ভর্তি হতে ঢাকা বোর্ড তাকে অনুমতিও দেয়।

ভাই আবরার ফাহাদের মৃত্যুর পর ঢাকায় আর পড়ালেখা করবেন না বলে সাংবাদিকদের জানিয়েছিলেন ফায়াজ। কেন এমন সিদ্ধান্ত নিয়েছেন- এমন প্রশ্নের জবাবে ফায়াজ বলেছিলেন, ভাইকে হারিয়ে আমি একা হয়ে পড়েছি। ঢাকায় থাকার এখন কোনো মানে হয় না।

কুষ্টিয়া সরকারি কলেজের অধ্যক্ষ প্রফেসর কাজি মনজুর কাদির জানান, আবরার ফায়াজের ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে। আমরা তার নিরাপত্তাসহ পড়াশোনা সংক্রান্ত বিষয়ে সার্বিক সহযোগিতা করব।

আবরার ফায়াজের বাবা বরকত উল্লাহ জানান, আবরার ফাহাদের মৃত্যুর পর পবিবারের মাঝে এক অজানা শঙ্কা কাজ করছে। বিশেষ করে তার মা আর কোনো ভাবেই চাচ্ছেন না আবরার ফায়াজ ঢাকাতে পড়ালেখা চালিয়ে যাক। আবরার ফায়াজেরও ইচ্ছে নেই ঢাকাতে থাকার। যার কারণে আসলে তাকে কুষ্টিয়াতে ভর্তি করা।

প্রসঙ্গত, গত ৬ অক্টোবর বুয়েটের শেরেবাংলা হলে আবরার ফাহাদকে পিটিয়ে হত্যা করেন ছাত্রলীগের একদল নেতাকর্মী। আবরার বুয়েটের তড়িৎ ও ইলেকট্রনিক প্রকৌশল বিভাগের দ্বিতীয় বর্ষের (১৭তম ব্যাচ) ছাত্র ছিলেন।

পিএনএস/ হাফিজুল ইসলাম

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech