র‌্যাব পরিচয়ে অপহরণ, ৩ মাস ২২ দিন পর যুবলীগ নেতা উদ্ধার

  

পিএনএস ডেস্ক : নাটোর থেকে র‍্যাপিড অ্যাকশন ব্যাটালিয়ন (র‍্যাব) পরিচয়ে অপহরণের তিন মাস ২২ দিন পর উদ্ধার হয়েছেন যুবলীগ নেতা জামিল হোসেন মিলন। গতকাল বুধবার তাকে একটি মাইক্রোবাসে ঢাকার আবদুল্লাহপুর এলাকায় রেখে যান অপহরণকারীরা।

যুবলীগ নেতা মিলনের বাবা এমদাদুল হক মিয়াজি জানান, বুধবার রাত ১১টার দিকে অপহরণকারীরা মিলনকে ঢাকার আবদুল্লাহপুরে মাইক্রোবাস থেকে নামিয়ে দেন। একই সঙ্গে তারা মিলনের হাতে দুই হাজার টাকা ধরিয়ে দেন। এরপর মিলন বাসে করে বৃহস্পতিবার সকাল ৬টায় নাটোরে আসেন।

এমদাদুল হক মিয়াজি আরও জানান, মিলনকে আবদুল্লাহপুরে নামানোর আগে চোখ বাধা অবস্থায় চারবার মাইক্রোবাস বদল করা হয়। এ ছাড়া অপহরণের এই তিন মাস ২২ দিন একটি ছোট অন্ধকার কক্ষে মিলনকে আটকে রাখা হয়েছিল। খাবার দেওয়া ছাড়া ওই রুমে কেউ আসতো না।

জামিল হোসেন মিলন জানান, চোখ বেঁধে তাকে অপহরণ করা হয়েছিল। পরে একটি অন্ধকার কক্ষে নিয়ে একাই রাখা হয়েছিল। আবার চোখ বেঁধেই ছেড়ে দেওয়া হয়। তাই কারা এই ঘটনার সঙ্গে জড়িত তাদের সনাক্ত করতে পারেননি।

এ বিষয়ে নাটোরের পুলিশ সুপার সাইফুল্লাহ আল মামুন বলেন, ‘মিলনকে জিজ্ঞাসাবাদ শেষে এই ঘটনার সাথে কারা জড়িত রয়েছে তা নিশ্চিত হওয়া যাবে। এরপর আইনগত ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।’

গত ৩১ জানুয়ারি রাত সাড়ে ১১টার দিকে নাটোর সদর উপজেলার তালতলা হাফরাস্তা এলাকায় কর্মী সমর্থকদের বিদায় করে নিজ অফিসে বসে ছিলেন মিলন। এ সময় একটি মাইক্রোবাসে আসা কয়েকজন অস্ত্রধারী তাকে মুখোশ পড়িয়ে তুলে নিয়ে যান।

এই ঘটনায় ১ ফেব্রুয়ারি মিলনের বাবা এমদাদুল হক মিয়াজি র‌্যাব পরিচয়ে অপহরণের অভিযোগে নাটোর থানায় জিডি করেন।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech