শিমুলিয়া-কাঁঠালবাড়ি নৌ-রুটে যাত্রীদের উপচেপড়া ভিড়

  

পিএনএস : কাঁঠালবাড়ি-শিমুলিয়া নৌ-রুট হয়ে বুধবার সকাল থেকেই কর্মস্থলমুখী যাত্রীদের উপচেপড়া ভিড় শুরু হয়েছে। লঞ্চ ও স্পিডবোটে যাত্রীর চাপ বেশি। তবে আজও ফেরিতে যানবাহন সংকট থাকায় দীর্ঘ সময় ঘাট এলাকায় অপেক্ষা করতে হচ্ছে ফেরিগুলোকে। যাত্রী চাপ বেশি থাকায় লঞ্চে ধারণক্ষমতার চেয়ে বেশি বোঝাই হয়ে পদ্মা পাড়ি দেয়ার বিষয়টি স্বীকার করে ঘাট এলাকায় কর্তব্যরত বিআইডব্লিউটিএর কর্মকর্তারা বিষয়টি 'সহনীয় লোড' বলছেন।

লঞ্চে ভিড় বেশি থাকায় যাত্রী নিয়ন্ত্রণে পুলিশ, বিআইডব্লিউটিএ, ফায়ার সার্ভিস, আনসার সদস্যদের তৎপরতা চালিয়ে যাচ্ছেন। এদিকে দক্ষিণাঞ্চলের সকল জেলা থেকে ছেড়ে আসা যানবাহনের সাথে সাথে এ রুটের ফেরি, লঞ্চ, স্পিডবোটেও বাড়তি ভাড়া আদায়ের অভিযোগ রয়েছে। এদিকে পদ্মা নদীতে পানি বৃদ্ধি অব্যাহত থাকায় কাঁঠালবাড়ির ১ নং ফেরি ঘাটের র্যাম প্লাবিত হয়েছে। নদীতে বেড়েছে স্রোতের গতিবেগ।

বিআইডব্লিউটিএর মাওয়া নৌ বন্দরের সহকারি পরিচালক শাহাদাত হোসেন বলেন, বৈরী আবহাওয়ার কারণে গতকাল যাত্রী চাপ কম থাকায় আজ লঞ্চে যাত্রী চাপ বেশি। যাত্রী ধারণক্ষমতা দেখে সহনীয় পর্যায়ে লোড করা হচ্ছে। যাত্রীদের নিরাপত্তায় এবং ওভারলোড ঠেকাতে পুলিশ, বিআইডব্লিউটিএ, ফায়ার সার্ভিস, আনসার যৌথভাবে কাজ করছে। কোন অবস্থাতেই ওভারলোড ও বাড়তি ভাড়া আদায় সহ্য করা হবে না।

বিআইডব্লিউটিসির কাঁঠালবাড়ি ঘাটের সহকারি ম্যানেজার মো. মমিন উদ্দিন বলেন, পানি বৃদ্ধি পেয়ে কাঁঠালবাড়ি ১নং ফেরি ঘাটের র্যাম প্লাবিত হওয়ায় সেটি স্থানান্তরের কাজ শুরু হবে। লঞ্চে ও ফেরিতে যাত্রী চাপ থাকলেও এখনো ফেরি ঘাটে যানবাহন সংকট রয়েছে।

পিএনএস/মোঃ শ্যামল ইসলাম রাসেল




 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech