আল্লামা শফীকে এক নজর দেখতে ভোর থেকেই অপেক্ষায় লক্ষাধিক মানুষ

  


পিএনএস ডেস্ক: দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম হাটহাজারী মাদরাসার মহাপরিচালক ও হেফাজতে ইসলামের আমির আল্লামা শাহ আহমদ শফীর লাশ হাটহাজারীতে পৌঁছে সকাল সোয়া ৯টায়। ভোর থেকেই এক নজর দেখার জন্য মাদরাসা প্রাঙ্গন ও রাস্তায় জমায়েত হয়েছে লক্ষাধিক ভক্ত ছাত্র শিক্ষক ও তৌহিদী জনতা।

ঢাকা থেকে সড়ক পথে বিশেষ অ্যাম্বুলেন্সে হাটহাজারীতে পৌঁছার পর প্রথমে নিয়ে যাওয়া হয় মাদরাসার পার্শ্বে নিজস্ব বাসভবনে পরিবারের সদস্যদের দেখানোর জন্য। সেখানে প্রায় পৌণে এক ঘণ্টা রেখে পরিবারের সদস্যরা শেষবারের মতো দেখে নেন তাদের আপনজনকে। ১০টার দিকে শতবর্ষী ও পরিবারের বটবৃক্ষ আল্লামা শাহ আহমদ শফী হুজুরকে পরিবারের সদস্যরা শেষ বিদায় জানান।

এরপর সকাল ১০টায় নিয়ে আসা হয় তিন যুগের নিজ কর্মস্থল দারুল উলুম হাটহাজারী মাদরাসা ক্যাম্পাসে। এ সময় ক্যাম্পাসজুড়ে, ভবনে, ছাদে ও রাস্তায় অপেক্ষমান লক্ষাধিক ভক্তের অশ্রুসিক্ত নয়নে দেখা মেলে আল্লামা আহমদ শফীর লাশবাহী গাড়িটির। ক্যাম্পাসে ভিতর দিয়ে নিয়ে রাখা হয় মাদরাসার দক্ষিণ গেটে। সেখানে হিমগাড়িতে রেখে ভক্তদের দেখার সুযোগ করে দেয়া হয় আল্লামা শাহ আহমদ শফীকে। মাদরাসার নিজস্ব সেচ্ছাসেবক বাহিনীর তত্বাবধানে সাড়ে ১০টার পর থেকে দেখার সুযোগ পান হুজুরের ভক্ত ছাত্র শিক্ষকসহ তৌহিদী জনতা।

আল্লামা শাহ আহমদ শফী ১৯৮৬ সালে দারুল উলুম মুঈনুল ইসলাম হাটহাজারী বড় মাদ্রাসার মহাপরিচালক (মুহতামিম) পদে যোগ দেন। টানা ৩৪ বছর এই দায়িত্ব পালনের পর তিনি গত ১৭ সেপ্টেম্বর বৃহস্পতিবার পদত্যাগ করে নিজেকে দায়িত্বমুক্ত করেন এবং পরবর্তী ২৪ ঘণ্টার মধ্যে শুক্রবার সন্ধ্যায় তিনি পৃথিবী থেকেই চিরবিদায় নেন।

এদিকে হাটহাজারীতে আল্লামা শাহ আহমদ শফি হুজুরের জানাজাকে ঘিরে চট্টগ্রাম - খাকড়াছড়ি মহাসড়কে সাধারণ যান চলাচল অনেকটা বন্ধ হয়ে গেছে। হাটহাজারী পৌর এলাকায় ও মাদরাসার আশপাশে মোতায়েন রয়েছে কয়েক শ’ পুলিশ ও র্যা ব সদস্য। এ পর্যন্ত আইন শৃংখলা বাহিনীর কড়া নজরদারীতে মোটামুটি সুশৃংখলভাবে জানাজা নামাজের লক্ষ লক্ষ মানুষে বিশাল প্রস্তুতি চলছে। দুপুর ২টায় মাদরাসা মাঠে আল্লামা শাহ আহমদ শফী হুজুরের জানাজা নামাজ অনুষ্ঠিত হবে। হুজুরের বড় ছেলে নিজ গ্রামে প্রতিষ্ঠিত মাদ্রাসার পরিচালক মাওলানা মোঃ ইউছুপ জানাজার ইমামতি করবেন বলে মাদরাসা সূত্র জানিয়েছেন।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন