৫০টি ডিম খাওয়ার বাজি, ৪১টি খাওয়ার পরেই প্রাণ হারালেন যুবক!

  

পিএনএস ডেস্ক : যুগ পাল্টেছে, সব কিছুর সাথে বাজি ধরাও স্মার্ট হয়েছে। সেটা হলো অনলাইনে বাজি ধরা। এক্ষেত্রে আপনি দেশ বিদেশের সবার সাথে বাজি ধরতে পারবেন নিশ্চিতে।বন্ধুর সঙ্গে বাজি ধরেছিলেন ৫০টি ডিম খাওয়ার। খেতে পারলেই মিলবে ২০০০ টাকা। ৪১টি খেয়েও ফেলেছিলেন। কিন্তু ৪২তম ডিম খাওয়ার সময় প্রাণ হারালেন এক ব্যক্তি। উত্তরপ্রদেশের জৌনপুর জেলার শাহগঞ্জ থানা এলাকার এই ঘটনায় এলাকায় ব্যাপক চাঞ্চল্য ছড়িয়েছে। মৃত ব্যক্তির নাম সুভাষ যাদব (৪২)।

শাহগঞ্জ থানার ভারপ্রাপ্ত অফিসার জেপি সিংহ জানিয়েছেন, এক বন্ধুর সঙ্গে বিবিগঞ্জ বাজারে ডিম খেতে গিয়েছিলেন সুভাষ। সেখানে এক বোতল মদের সঙ্গে ৫০টি ডিম খাওয়ার বাজি ধরেন তাঁরা। ঠিক হয়, যে জিতবে, সে ২০০০ টাকা পাবে।

এর পরই ডিম খেতে শুরু করেন সুভাষ। পর পর ৪১টা ডিম উদরস্থ করেন তিনি। কিন্তু তার পরের ডিমটি মুখে পোরার পরেই মাটিতে লুটিয়ে পড়েন। আচমকা এই ঘটনায় থতমত হয়ে যান স্থানীয়রা। তড়িঘড়ি সুভাষকে জেলা হাসপাতালে নিয়ে যান তাঁরা। কিন্তু সেখান থেকে তাঁকে ফিরিয়ে দেন চিকিৎসকরা। এর পর লখনউয়ের সঞ্জয় গাঁধী পোস্ট গ্র্যাজুয়েট ইনস্টিটিউট অব মেডিক্যাল সায়েন্সেস-এ নিয়ে যাওয়া হয় তাঁকে। কিন্তু সেখানকার চিকিৎসকরাও বাঁচাতে পারেননি তাঁকে।

ওই হাসপাতালের চিকিৎসকদের প্রাথমিক অনুমান, অতিরিক্ত খেয়ে ফেলার জেরেই সুভাষ যাদবের মৃত্যু হয়েছে। তবে ময়নাতদন্তের পরেই মৃত্যুর আসল কারণ জানা যাবে। এ নিয়ে তাঁর পরিবারের কেউ কোনও মন্তব্য করেননি। এখনও পর্যন্ত মামলাও দায়ের হয়নি কারও বিরুদ্ধে।

স্থানীয় সূত্রে জানা গিয়েছে, মোট দু’বার বিয়ে করেছেন সুভাষ যাদব। প্রথম স্ত্রীর চার মেয়ে রয়েছে তাঁর। এ বছর দ্বিতীয়বার বিয়ে করেন। সেই দ্বিতীয় স্ত্রী গর্ভবতী।

পিএনএস/এএ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech