অবাক কাণ্ড, মানুষের কাছে মাছের আবেদন!

  

পিএনএস ডেস্ক : সাগরের প্রাণী মানটা রে। এরা ব্যাটোডিয়া উপবর্গের বড় পাখনাবিশিষ্ট ‘রে’ মাছের একটি প্রজাতি। গত বৃহস্পতিবার এই মাছের মানুষের কাছে সাহায্য চাওয়ার একটি ভিডিও ছড়িয়ে পড়েছে অনলাইনে। তাতে দেখা যায়, একটি স্ত্রী মানটা রে এক ডুবুরির কাছে বারবার ঘেঁষছে। আক্রমণাত্মক ভঙ্গিতে নয়, বরং খুব শান্ত ও বিপদাপন্ন আকুতিতে।

বিপদাপন্ন মাছটির আহ্বানে সাড়া দিয়ে ডুবুরি জেক উইলটন কাছে গিয়ে দেখতে পান, মাছটির ডান চোখে একটি বড়শি আঁটা। তিন মিটার প্রশস্ত প্রকাণ্ড মাছটির কাছে গিয়ে সাহায্য করতে একটু ভেবে নেন ডুবুরি। এটির চোখ থেকে শক্ত করে আঁটা বড়শিটি খুলতে কয়েকবার ভাসা-ডোবা করতে হয় তাঁকে। তিনি প্রতিবারই ডুব দিয়ে অবাক হন, মাছটি একই জায়গায় স্থির থেকে তাঁর জন্য অপেক্ষা করছে।


পশ্চিম অস্ট্রেলিয়ার কোরাল বে শহরের বিশ্ব ঐতিহ্য-ঘোষিত স্থান নিঙ্গালু রিফের কাছেই ঘটনাটি সম্প্রতি ঘটেছে। পুরো ঘটনার ভিডিও ধারণ করেছেন মনটি হিল নামের আরেক ডুবুরি। নিঙ্গালু রিফ এলাকাটি মানটা রে মাছেদের বিশ্রামের জায়গা বলে পরিচিত। মানটা রে মাছেরা সেখানে আসে ছোট ছোট মাছেদের কাছে গা পরিষ্কার করে নিতে। এই মাছেরা বেশ বুদ্ধিমান হয় এবং প্রজাতির অন্য মাছকে আলাদা করে চিনতে পারে। তাদের পাখা ২০ ফুট পর্যন্ত ছড়াতে পারে। মানুষের জন্য তারা ক্ষতিকর নয়।

জেক উইলটনের কাছে সাহায্য চাওয়া রে মাছটির গায়ে মেছতার মতো দাগ ছিল। এ কারণে তিনি আদর করে এর নাম দিয়েছেন ‘ফ্রেকলস’ (মেছতা)। তিনি বলেন, মাছটি সুস্থ আছে। হয়তো সাগরে পরেরবার দেখা হলে তাঁকে চিনতে পারবে সে।

পিএনএস/জে এ

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech