বিশ্বব্যাপী যে সংক্রামক রোগে সব চেয়ে বেশি মানুষের মৃত্যু হয়

  


পিএনএস ডেস্ক: সারা বিশ্বে প্রতিদিন বিভিন্ন রোগে আক্রান্ত মারা যায় অনেক মানুষ। এসবের মধ্যে যক্ষ্মা রোগকে বিশ্বের শীর্ষ মানুষ হত্যাকারী সংক্রামক রোগ হিসেবে উল্লেখ করেছে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা।

সংস্থাটির দাবি, এ রোগে প্রতিদিন ৪ হাজার ৫০০ জন মানুষ প্রাণ হারায়। সুদীর্ঘকাল ধরে যক্ষ্মা বিশ্বব্যাপী অন্যতম প্রধান সংক্রামক রোগের স্থান ধরে রেখেছে। এ রোগে প্রতিবছর লাখ লাখ মানুষের মৃত্যু ঘটে।
বিশেষ করে দরিদ্র এবং ঘনবসতিপূর্ণ দেশগুলোতে এর প্রকোপ সবচেয়ে বেশি। সংক্রামক এ রোগটি ২০৩৫ সালের মধ্যে নির্মূলে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা একটি (এ্যন্ড টিবি) কর্মকৌশল ঘোষণা করেছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা-২০১৫ সালে যক্ষ্মাকে মহামারি হিসেবে উল্লেখ করে এ রোগ নির্মূলের লক্ষ্যে সদস্য রাষ্ট্রগুলোর জন্য কর্মকৌশল অনুমোদন করেছে। উচ্চাভিলাষী সেই কর্মকৌশল অনুযায়ী ২০৩৫ সালের মধ্যে বিশ্ব থেকে যক্ষ্মারোগের মৃত্যুহার ৯৫ শতাংশ কমাতে হবে। পাশপাশি শনাক্তকরা যক্ষ্মা রোগীর হার ৯০ শতাংশ কমিয়ে আনতে হবে।

সংশ্লিষ্টরা জানান, ১৯৯৩ সালে বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা যক্ষ্মাকে গ্লোবাল ইমার্জেন্সি ঘোষণা করে। সংস্থাটির প্রকাশিত তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বের যে ৩০টি দেশে যক্ষ্মা রোগী সর্বাধিক তাদের মধ্যে বাংলাদেশ অন্যতম। তাদের তথ্য অনুযায়ী, প্রতি বছর বিশ্বে ১০ দশমিক ৪ মিলিয়ন লোক নতুনভাবে যক্ষ্মারোগে আক্রান্ত হয় এবং ১ দশমিক ৩ মিলিয়ন লোক এ রোগে মৃত্যুবরণ করে। এসব মৃত্যুর বেশিরভাগই ঘটে থাকে উন্নয়নশীল দেশে, মৃত্যুবরণকারীদের মধ্যে কর্মক্ষম নারী-পুরুষই বেশি।

পিএনএস/আনোয়ার

 

@PNSNews24.com

আপনার মন্তব্য প্রকাশ করুন
Developed by Diligent InfoTech