স্বাস্থ্যকথা

সপ্তাহে কয়টা ডিম খাওয়া উচিৎ?

  

পিএনএস ডেস্ক:ডিম একটি সস্তা খাবার হলেও তা পুষ্টিতে ভরপুর। ডিমে প্রচুর পরিমাণে প্রোটিন, পটাসিয়াম, ম্যাগনেসিয়াম, সোডিয়াম, ফসফরাস, আয়রন, জিঙ্ক থাকে যা আমারের শরীরের জন্য খুবই উপকারী। রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বৃদ্ধিতেও ডিম অনেক ভূমিকা রাখে। ডিমে প্রচুর পরিমাণে ভিটামিন এ, ভিটামিন ডি, ভিটামিন বি-সিক্স এবং বি-টুয়েলভ; যা আমাদের শরীরের জন্য খুবই উপকারী। ডিমের এমন অনেক উপকারিতার পাশাপাশি কিছু ক্ষতিকর দিকও রয়েছে। অতিরিক্ত ডিম খেলে রক্তে অতিরিক্ত কোলেস্টেরল, হার্টের সমস্যার মতো অসুখে ভোগার সম্ভাবনা

খেজুর খেলে যেসব রোগ থেকে মিলবে মুক্তি

  

পিএনএস ডেস্ক:পুষ্টিগুণে সমৃদ্ধ একটি ফল খেজুর। ফলটি সারা বছরই খেতে পারেন। আপনি কি জানেন খেজুর খেলে দূর হতে পারে অনেক রোগ?খেজুর পুষ্টিগুণে ভরপুর একটি ফল। আয়রনের অন্যতম উৎস খেজুর অবশ্যই রাখুন খাবার তালিকায়। প্রতিদিনের খাবার তালিকায় খেজুর রাখলে শরীরে রোগ প্রতিরোধ ক্ষমতা বাড়বে।খেজুর ডায়েটে রাখার কথা বলে থাকেন প্রায় সব পুষ্টিবিদই। প্রতি ১০০ গ্রাম খেজুরে ০.০৯ গ্রাম আয়রন থাকে।পুষ্টিবিদদের মতে, শরীরের প্রয়োজনীয় আয়রনের অনেকটাই এই খেজুর থেকে মেলে।তবে যাদের ডায়াবেটিস রয়েছে তাদের শুকনো

ডেঙ্গু জ্বরে পেঁপে পাতা

  

পিএনএস ডেস্ক: শাস্ত্রে দণ্ডকজ্বর নামে অভিহিত করা হয়েছে। ডেঙ্গু জ্বরে আক্রান্তের শারীরিক পরিস্থিতি কেমন হবে তা নির্ভর করে তার রোগ-প্রতিরোধী ক্ষমতার উপর।যার ইমিউনিটি কম, তার ক্ষেত্রে ডেঙ্গু ভাইরাসের আক্রমণের প্রভাবও বেশি। তার শারীরিক অবস্থার অবনতিও দ্রুত ঘটেছে।ডেঙ্গু রোগীর চিকিৎসায় পেঁপের পাতা ও পেঁপে ফল দুটিই গুরুত্বপূর্ণ ভূমিকা রাখে। অবশ্য রোগীর বমি করার প্রবণতা থাকলে পেঁপে পাতার রস খাওয়ালে বিশেষ ফল পাওয়া মুশকিল।পেঁপে পাতার রস ডেঙ্গুর ভাইরাস দমনে কোনো সাহায্য করে না। প্রত্যেক

হৃদরোগীরা যেভাবে খেতে পারবেন কোরবানির মাংস

  

পিএনএস ডেস্ক : কোরবানির ঈদের ঘোরাঘুরি তো আছেই, তারচেয়েও বড় খাওয়াদাওয়া। কোরবানির মাংস দিয়ে তৈরি নানা পদের নানা স্বাদের খাবারে লোভ সামলানোই দায়। কিন্তু তাই বলে চোখ বুঝে শুধু খেয়ে গেলেই হবে না। কারণ অতিরিক্ত মাংস খাওয়া আপনার বিপদ ডেকে আনতে পারে। তাই শরীর সুস্থ রাখতে নিয়ন্ত্রণের মধ্যে থেকেই খেতে হবে মাংস।তবে যারা বিভিন্ন ধরনের রোগে ভুগছেন, বিশেষ করে হৃদরোগে, তাদের কোরবানির গরুর মাংস খাওয়ার ক্ষেত্রে সতর্কতা জরুরি। কারণ, প্রাণিজ আমিষ বিশেষ করে রেড মিট বা লাল মাংসে থাকে প্রচুর স্যাচুরেটেড ফ্যাট,

দেশে ডেঙ্গুতে ৪০ জনের মৃত্যু: স্বাস্থ্য অধিদফতর

  

পিএনএস ডেস্ক : সারা দেশে ছড়িয়ে পড়া ডেঙ্গুতে মৃতের সংখ্যা বেড়ে ৪০ জনে দাঁড়িয়েছে বলে রবিবার জানিয়েছে সরকার।স্বাস্থ্য অধিদফতরের হেলথ ইমার্জেন্সি অপারেশনস সেন্টার ও কন্ট্রোল রুম রোববার এতথ্য জানিয়েছে।কান্ট্রোল রুমের তথ্য অনুযায়ী, মৃতদের মধ্যে ৩৯ জন ঢাকা শহরের বিভিন্ন হাসপাতালে মারা গেছেন। আরেকজনের মৃত্যু হয়েছে রাজধানীর বাইরে তবে ঢাকা বিভাগের মধ্যেই। আগস্টে ১০ এবং জুলাইতে ২৪ জন মারা গেছেন।গত জানুয়ারি থেকে ডেঙ্গুতে আক্রান্ত হয়ে ৪১ হাজার ১৭৮ জন হাসপাতালে ভর্তি হন। তাদের মধ্যে পুরোপুরি

ঈদে বেশি বেশি মাংস খেয়েও সুস্থ থাকার ৪ উপায়

  

পিএনএস ডেস্ক : রাত পোহালেই কোরবানির ঈদ। মুসলিম ধর্মাবলম্বীদের সর্ববৃহৎ এই ধর্মীয় উৎসব ঘিরে সারা দেশেই কোরবানির মাংসের ছড়াছড়ি লেগে যায়। অনেকেই আন্দাজ না বুঝে একটু বেশি বেশিই খেতে চান মাংস। কিন্তু খাওয়ার পর অনেকেই অসুস্থ হয়ে পড়েন খুব দ্রুত। কারও কারও হাসপাতাল পর্যন্তও যেতে হয়। ভুগতে হয় অনেক দিন। তাতে খুশির ঈদটাই মাটি হয়ে যায়। তাই ঈদুল আজহায় হাতের নাগালে গরুর মাংসের নানা স্বাদের রেসিপি থাকলেও খেতে হবে বুঝেশুনে। সেক্ষেত্রে কিছু নিয়ম নেমে খাওয়াদাওয়া করতে হবে। কারণ, নিয়ম মেনে মাংস খেলে কোনও

ঈদে হৃদরোগীরা যেভাবে থাকবেন সুস্থ

  

পিএনএস ডেস্ক : ঈদুল আজহা মানেই কোরবানির মাংস। উৎসবের এই দিনে মাংস রান্না হয় অন্য যেকোনো দিনের থেকে বেশি। আর একারণেই হৃদরোগীরাও অতিরিক্ত তৈলাক্ত জাতীয় খাবার খেয়ে ফেলেন। এরপরেই বেড়ে যায় অসুস্থতা। তবে কিছু নিয়ম মেনে চললেই ঈদের দিনগুলোতেও হৃদরোগীরা থাকবেন সুস্থ।গরুর মাংস, খাসির মাংস, মুরগির মাংস, ইলিশ মাছ ভাজা কিংবা কলিজা ভাজার মতো ভারী খাবার ঈদের দিন বেশি থাকে। কম থাকে হালকা খাবার যেমন- চপ, কাটলেট, সেমাই, জর্দা বা নুডলস।তাই সকালে নিজ বাসায় অল্প পরিমাণে হালকা খাবার সেমাই, জর্দা খেয়ে ঈদগাহে

এই ঈদের হেলথ টিপস

  

পিএনএস ডেস্ক:কোরবানির ঈদ চারদিকে মাংসের ছড়াছড়ি, সেই সঙ্গে বাড়তি খানাপিনা। এসময় বেশিরভাগ মানুষই গরু ও খাসির মাংস খেয়ে থাকেন বছরের অন্যান্য সময়ের তুলনায় অনেক বেশি। অতিরিক্ত রেড মিট খাওয়ার কারণে বদহজম থেকে শুরু করে উচ্চ রক্তচাপের সমস্যা দেখা দেয় অনেকেরই। তাই বলে কী গরুর মাংস খাওয়া বন্ধ রাখবেন? মোটেই না। বরং জেনে নিন গরুর মাংস রান্নার কিছু স্বাস্থ্যকর উপায়। এতে আপনার মাংস খাওয়া বেশি হলেও ক্ষতি হবে কম। গরু, খাসি এমন সব ধরণের রেড মিট রান্নার ক্ষেত্রেই এসব টিপস আপনার কাজে আসতে পারে।১) শুধু মাংস

বর্ষায় সুস্থ রাখবে চা

  

পিএনএস ডেস্ক: ধোয়াওঠা এককাপ চা আপনার সারাদিনের ক্লান্তি ভুলিয়ে দিতে পারে। রুমঝুম বৃষ্টিতে দেখতে দেখতে চায়ে চুমুক- এর থেকে আয়েশী আর কী হতে পরে! কিন্তু স্বাস্থ্যের দোহাই দিয়ে সেই চা টা গ্রিন বা হোয়াইট টি হলে কিন্তু পুরো মজাটাই শেষ। মন খারাপ করবেন না। আপনার বৃষ্টিবিলাস জমিয়ে দিতে পারে এক কাপ মশলা চা। স্বাস্থ্য বিশেষজ্ঞরাও কিন্তু সেকথাই বলছেন।জেনে নিন কী ভাবে চাকে আরও স্বাস্থ্যসম্মত করে তোলা যায়, চায়ের সঙ্গে কী মেশালে এই বর্ষায় কোনো সংক্রমণ বা অ্যালার্জি আপনার কাছে ঘেঁষতেও পারবে না।রোগ

ওজন কমায় আনারস

  

পিএনএস ডেস্ক: যেকোনো ফলই জুস করে খাওয়ার বদলে আস্ত খাওয়ার পরামর্শ দেন বিশেষজ্ঞরা। কিন্ত আনারস এমন একটি ফল যা কিনা আস্ত খাওয়ার থেকে যদি জুস করে খাওয়া বেশি ভালো। অন্য যেকোনো ফলের রসের থেকে আনারস উপকারী। আনারসের জুসে আলাদা করে চিনি দিতে হয় না। এটি এমনিই মিষ্টি। এছাড়াও এর মধ্যে থাকে অ্যাসকরবিক অ্যাসিড। যা শরীরে ভিটামিন সি এর চাহিদা পূরণ করে। জেনে নিন আনারসের জুস খেলে যেসব উপকার মিলবে-আনারসের জুস যেকোনো রকম ক্ষত সারাতে কার্যকরী। এছাড়াও আনারস খেলে হজম ভালো হয়, দীর্ঘদিনের জ্বালা যন্ত্রণা থেকে

Developed by Diligent InfoTech