কৃষি

ব্যস্ত চুয়াডাঙ্গার আম চাষীরা

  

পিএনএস ডেস্ক :‘ঝড়ের দিনে মামার দেশে, আম কুড়াতে সুখ, পাকা জামের মধুর রসে, রঙিন করি মুখ’ - পল্লীকবি জসীমউদ্দিনের ‘মামার বাড়ি’ কবিতার পঙক্তিগুলো এখনো মনে পড়ে। যদিও আম কুড়ানোর সময় এখনও আসেনি। তবে মুকুলের ঘ্রাণ বইতে শুরু করেছে। চারিদিকে ছড়িয়ে পড়ছে মুকুলের পাগল করা ঘ্রাণ। ফাল্গুনি হাওয়ায় থোকায় থোকায় দুলছে আমের মুকুল। শীতের শেষে আম গাছের কচি ডগা ভেদ করে সবুজ পাতার ফাঁকে হলদেটে মুকুলগুচ্ছ যেনো উঁকি দিয়ে হাসছে। বাগানের সুনসান নীরবতা চিরে একটানা গান শোনাচ্ছে মৌমাছি। মুকুলের মৌ মৌ গন্ধে মৌমাছির

লাগামহীন কৃষিঋণের খেলাপি

  

পিএনএস ডেস্ক: বড় ঋণের মতো কৃষিঋণের খেলাপির লাগাম টানা যাচ্ছে না। এখন পর্যন্ত কৃষিঋণে খেলাপির পরিমাণ ৫ হাজার ২৭২ কোটি টাকা। জানুয়ারিতেই খেলাপি বেড়েছে প্রায় ৫০ কোটি টাকা। দীর্ঘদিন ধরে খেলাপির এ অঙ্ক বাড়া ছাড়া কমছে না। মোট খেলাপির প্রায় ৯০ শতাংশ রাষ্ট্রায়ত্ত ব্যাংকগুলোর।এদিকে কৃষিঋণের বিতরণও বাড়ছে। অর্থবছরের ৭ মাসে ১২ হাজার ৭০২ কোটি টাকা ঋণ বিতরণ করা হয়েছে বলে জানা গেছে। সংশ্লিষ্টরা বলছেন, বোরো মৌসুমে চাষাবাদের জন্য কৃষক এখন ব্যাংক থেকে ঋণ নিচ্ছেন। এ মৌসুমে কৃষিঋণ বিতরণ আরও বাড়বে বলে আশাবাদ

মহাদেবপুরে সফল তার্কি খামারী নয়ন

  

পিএনএস, নওগাঁ প্রতিনিধি : দেখতে কিছুটা ময়ূরের মতো। নিজের রুপের বর্হিপ্রকাশ করতে মাঝে মধ্যে ময়ুরে মতো পেখম মেলে ঘুরে বেড়ানো। একসাথে সবাই ডাকাডাকি। খুবই শান্ত প্রকৃতির প্রাণি। আর এ প্রাণিটির নাম তার্কি। তার্কি মুরগি নামেও পরিচিত। বাংলাদেশে এ নামটি খুববেশি পরিচিত না হলেও পশ্চিমা দেশগুলোতে এ জাতের মুরগির জনপ্রিয়তা রয়েছে অনেক। ঝুঁকি ও ঝামেলা কম হওয়ায় বেকার ও শিক্ষত যুবকরা এখন তার্কি পালনের দিকে আগ্রহী হচ্ছেন। নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার ভবানিনগর গ্রামের তার্কি খামারী নয়ন। তিনি দীর্ঘদিন ঢাকায় একটি

পানের বাজারে আগুন, বিপাকে ভোক্তারা!

  

পিএনএস, দিনাজপুর: পান মানুষের কাছে অতি পরিচিত একটি নাম। যে কনো খাবারের পরে পান না খেলে মানুষ যেনো অস্বস্তিতে ভোগে। সখের বশবর্তি হয়েও অনেকে পান খায়। গ্রমের যে কোনো বাড়িতে বেড়াতে গেলেও অতিথিকে কমপক্ষে পান খেতে দেয়া হয়। দিনাজপুরে সেই পানের বাজারে হঠাৎ আগুন লেগেছে, এতে বিপাকে পড়েছেন ভোক্তারা।ছোট ছোট পান বিক্রি হচ্ছে ১৫০ টাকা দরে(৬০টি পান)। একটু ভালো পান বিক্রি হচ্ছে ২০০ টাকা দরে, আর বড় পান বিক্রি হচ্ছে ৩০০ টাকা দরে ।সরেজমিন দিনাজপুরের বিভিন্ন হাট-বাজারে ঘুরে দেখা গেছে, খুচরা পান

মহাদেবপুরে নানা ফুলের সঙ্গে আমের মুকুলও সৌরভ ছড়াচ্ছে

  

পিএনএস, নওগাঁ প্রতিনিধি : প্রকৃতির পালাবদলে শীতের শেষে ঋতুরাজ বসন্তের আগমনে কোকিলের সুমিষ্ট কুহুতালে উত্তাল বাসন্তী হাওয়া দোলা দিয়ে যাচ্ছে। এরই মধ্যে নওগাঁর মহাদেবপুর উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় আম গাছগুলোতে মুকুল আসতে শুরু করেছে। নানা ফুলের সঙ্গে আমের মুকুলও সৌরভ ছড়াচ্ছে। জানান দিচ্ছে মধুুমাসের। আমের মুকুলের মিষ্টি সুবাসে মৌ মৌ করছে প্রকৃতি। সেই সুমিষ্ট ঘ্রাণ আন্দোলিত করে তুলছে মানুষের মন। জানা গেছে, এক সপ্তাহ আগে থেকেই আম গাছে মুকুল দেখা দিতে শুরু করেছে। এখন সময়ের ব্যবধানে তা আরো বাড়ছে। তবে আগামী

বোরো নিয়ে বিপাকে জয়পুরহাটের কৃষকরা

  

পিএনএস, জয়পুরহাট: উত্তরের জেলা জয়পুরহাটে ঘন কুয়াশা আর দিনভর সূর্যের আলো না থাকায় এবার বোরো ধানের বীজতলা নিয়ে বিপাকে পড়েছেন জয়পুরহাট জেলার কৃষকরা।গেলো কয়েকদিনের তীব্র শৈত্যপ্রবাহ ও ঘন কুয়াশায় বীজতলা নষ্ট হয়ে গেছে। সেইসঙ্গে দেখা দিয়েছে নানা প্রকারের রোগ বালাই। ফলে বোরো ধানের চারা নিয়ে দেখা দিয়েছে সংকট। এই অবস্থায় বোরো উৎপাদন নিয়ে চরম আশঙ্কায় রয়েছে চাষিরা।স্থানীয় কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা যায়, চলতি মৌসুমে জেলায় ৭২ হাজার ৭৮৫ হেক্টর জমিতে বোরো আবাদের লক্ষ্য নির্ধারণ করা হয়েছে।

শেরপুরে ভুট্টাগাছের সঙ্গে এ কেমন শত্রুতা!

  

পিএনএস শেরপুর (বগুড়া) সংবাদদাতা : বগুড়ার শেরপুরে আব্দুল মান্নান নামের এক বর্গা চাষির দুই বিঘা জমিতে লাগানো ভুট্টাগাছের গোড়া কেটে দিয়েছে দুর্বৃত্তরা। এতে ক্ষেতের সম্পুর্ণ ফসল বিনষ্ট হওয়ায় চোঁখে-মুখে অন্ধকার দেখছেন এই বর্গাচাষি। গত মঙ্গলবার (১৩ফেব্রুয়ারি) দিনগত রাতে উপজেলার ভবানীপুর ইউনিয়নের ঘোগা বটতলা এলাকায় ঘটনাটি ঘটে। এদিকে উক্ত ঘটনায় স্থানীয় এলাকাবাসী ও কৃষি অফিসের কর্মকর্তারাও বিস্ময় বনে গেছেন। উপ-সহকারি কৃষি কর্মকর্তা আব্দুল আজিজ, মাহমুদুল হাসান, সোহেল রানাসহ একাধিক ব্যক্তি ক্ষোভ

কৃষিতে বাড়ছে আধুনিক যন্ত্রের ব্যবহারে

  

পিএনএস ডেস্ক: কৃষি কাজে দিন দিন বেড়েই চলছে আধুনিক যন্ত্রের ব্যবহার। আর এ যন্ত্রের ব্যবহারের ফলে চাষাবাদ হয়ে উছঠে লাভজনক। ফসল ফলানোর জন্য জমি চাষ, বীজ বপণ, নিড়ানি, সার দেয়া, কাটা, মাড়াই, ফসল ঝাড়া ও বস্তা প্যাকেট পর্যন্ত সব কিছুই আধুনিক কৃষি যন্ত্রের মাধ্যমে করা সম্ভব। গতানুগতিক পদ্ধতির চাষাবাদের চাইতে ফসলের বেশি ফলনও ঘরে তোলা সম্ভব। বিভিন্ন পর্যায়ের কৃষি বিজ্ঞানীদের সঙ্গে কথা বলে এ তথ্য জানা গেছে।বাংলাদেশ কৃষি বিশ্ববিদ্যালয়ের গবেষণা থেকে প্রাপ্ত তথ্যমতে, গতানুগতিক পদ্ধতিতে এক একর জমির

উন্মুক্ত জলাশয় থেকে হারিয়ে যাচ্ছে দেশি প্রজাতির মাছ

  

পিএনএস, নওগাঁ প্রতিনিধি : নওগাঁর মহাদেবপুরে উন্মুক্ত জলাশয় থেকে দেশি প্রজাতির নানা ধরনের মাছ দিন দিন হারিয়ে যাচ্ছে। প্রতিবছর বর্ষা মৌসুমে যে পরিমাণ দেশি মাছ উৎপন্ন হয়, সে পরিমাণ মাছ সংরক্ষণ করা যায় না। এর প্রধান কারণ অবাধে অবৈধ কারেন্ট জাল, কোনা ভেড়, ভিম জাল ও বাদাই জাল দিয়ে অসাধু জেলে এবং মধ্যস্বত্বভোগী এক শ্রেণীর মৎস্য ব্যবসায়ী ছোট-বড় দেশি মাছ শিকার করায় দেশি প্রজাতির মাছ বিলুপ্ত হচ্ছে। আবার বর্ষার পানি নামার সঙ্গে সঙ্গেই খাল-বিল, নালা, খ্যারি, পুকুর ডোবা অর্থাৎ যেখানে বর্ষার পানি

শেরপুরে মরিচ চাষে বেজায় খুশি কৃষক

  

পিএনএস, শেরপুর (বগুড়া) সংবাদদাতা : বগুড়ার শেরপুর উপজেলায় এবার মরিচ চাষ করে বেজায় খুশি কৃষক। বাম্পার ফলন ও ভাল দাম পাওয়ায় তৃপ্তির হাসি ফুটেছে তাঁদের মুখে। চলতি মৌসুমে স্থানীয় কুসুম্বী ইউনিয়নের উঁচুলবাড়িয়া, উদয়কুঁড়ি, পান্ডারপাড়াসহ উপজেলার বেশকয়েকটি গ্রামের কৃষকরা বিঘাকে বিঘা জমিতে এবার শীতকালীন মরিচ করেন।সরেজমিনে গিয়ে দেখা যায়, সবুজে ছেয়ে আছে মরিচের ক্ষেতগুলো। কোথাও কোথাও যা চোখের দৃষ্টিসীমাকেও ছাপিয়ে যায়। সেসব ক্ষেত থেকে দলবেঁধে মরিচ উঠাচ্ছেন নারী শ্রমিকরা। এসময় কথা হয় চাষি ইউসুফ আলীর সঙ্গে।

Developed by Diligent InfoTech